ইসলামের যাকাত বিধান – ২য় খন্ড

Pages from islamer_zakat_bidhan_2

ইসলামের যাকাত বিধান – ২য় খন্ড

আল্লামা ইউসূফ আল-কারযাভী

অনুবাদঃ মওলানা মুহাম্মাদ আবদুর রহীম


স্ক্যান কপি ডাউনলোড

[কুরআন ও সুন্নাহর আলোকের যাকাত বিধান ও তার দার্শনিক পটভূমির তুলনামূলক অধ্যয়ন]
প্রসঙ্গ-কথা
মানুষেল অর্থনৈতিক জীবনে ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠা, বিশেষত গরীব, নিঃস্ব ও অসহায় লোকদের জীবিকার নিশ্চয়তা বিধান নিঃসন্দেহে একটি কঠিন সমস্যা। এই সমস্যাটির সুষ্ঠু সমাধানের লক্ষ্যে বিভিন্ন দেশে ও বিভিন্ন অর্থ ব্যবস্থায় কিছু ‘কল্যাণধর্মী’ পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে। কিন্তু সে সব পদক্ষেপ সমাজে ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠার জন্যে কোন নিশ্চয়তা বিধান করতে পারে নি। ফলে কল্যাণধর্মী বলে খ্যাত রাষ্ট্রগুলোতেও সামাজিক ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠা ও দারিদ্র্য বিমোচনের কর্মসূচী এখনো নানা পরীক্ষা-নিরীক্ষার মধ্যে ঘুরপাক খাচ্ছে। দৃশ্যত কিছু কল্যাণধর্মী ব্যবস্থা গ্রহণ সত্ত্বেও লক্ষ লক্ষ অসহায় মানুষ সে সব দেশে চরম দুরাবস্থার মধ্যে বসবাস করছে।
ইসলাম আল্লাহর দেয়া এক পূর্ণাঙ্গ জীবন ব্যবস্থা। এ জীবন ব্যবস্থায় এক সুষম ও ভারসাম্যপূর্ণ অর্থনীতি ছাড়াও সামাজিক ন্যায়বিচারকে নিশ্চিত করার জন্যে যাকাত-এর একটি চমৎকার কর্মসূচীর বিধান রাখা হয়েছে। সমাজের বিত্তবান ও সচ্ছল লোকদের বাড়তি সম্পদের একটি নির্দিষ্ট অংশ নিয়মিত আদায় করে দরিদ্র ও বঞ্চিত লোকদের মধ্যে যথাযথ বণ্টন করাই এ কর্মসূচীর প্রধান বৈশিষ্ট্য। বলাবাহুল্য, এটি যেমন একটি রাষ্ট্রীয় কার্যক্রম, তেমনি ইসলামের একটি মৌলিক ইবাদতও। তাই পবিত্র কুরআনের বহুতর স্থানে নামায প্রতিষ্ঠার সাথে সাথে যাকাত প্রদানেরও আদেশ করা হয়েছে। কিন্তু দুঃখের বিষয় যে, যাকাত সম্পর্কে স্পষ্টতর ধারণার অভাবে এই কল্যানময় ব্যবস্থাটি থেকে আমাদের সমাজ যথোচিতভাবে উপকৃত হতে পারছে না। আরব জাহানের স্বনামধন্য ইসলামী চিন্তাবিদ ও সুপন্ডিত আল্লামা ইউসূফ আল-কারযাভী প্রণীত ‘ফিকহুয যাকাত’ নামক বিশাল গ্রন্থটি এদিক থেকে আমাদের জন্যে এক পরম সম্পদ। যাকাত আদায়ের উৎস ও ব্যয়ের খাতগুলো অত্যন্ত পুংখানুপুংখভাবে বিবৃত করা হয়েছে দুই খন্ডে বিভক্ত এই মূল্যবান গ্রন্থে। এ কালের অন্যতম শ্রেষ্ঠ ইসলামী চিন্তাবিদ ও দার্শনিক আল্লামা মুহাম্মাদ আবদুর রহীম (র) ’ইসলামের যাকাত বিধান’ শিরোনামে এই অনন্য গ্রন্থটি বাংলায় অনুবাদ করে সময়ের এক বিরাট দাবি পূরণ করেছেন। কিন্তু গ্রন্থটির প্রকাশনায় ধারাবাহিকতা না থাকায় এর অপরিমেয় কল্যাণ থেকে যথোচিতভাবে উপকৃত হতে পারেননি আমাদের বিদগ্ধ পাঠক সমাজ, বরং গত কয়েক বছর ধরে গ্রন্থটি বাজারে পাওয়া যাচ্ছে না বলে আগ্রহী পাঠকরা সরাসরি অভিযোগ করেছেন আমাদের কাছে।
এই অবস্থার প্রেক্ষাপটে আল্লামা মুহাম্মাদ আবদুর রহীম (রহ)- এর গ্রন্থাবলী প্রকাশের দাবিতে নিয়োজিত ‘খায়রুন প্রকাশনী’ এখন থেকে ‘ইসলামের যাকাত বিধান’ শীর্ষক গ্রন্থটির যথাযথ প্রকাশনার ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে। তদনুসারে এর প্রথম খন্ডটি পাঠকের হাতে তুলে দেয়া হয়েছে এবং বর্তমানে এর দ্বিতীয় খন্ডটিও সহৃদয় পাঠকদের হাতে তুলে দেয়া হল।
গ্রন্থটির এ সংস্করণে আমরা পূর্বেকার মুদ্রণ- প্রমাদগুলোর সংশোধনের জন্যে যথাসাধ্য চেষ্টা করেছি। এর অঙ্গসজ্জা ও মুদ্রণ পারিপাট্যকেও উন্নত করার ব্যাপারে যত্ন নেয়া হয়েছে। আমাদের দৃঢ় বিশ্বাস, গ্রন্থটির ও সংস্করণ পাঠকদের কাছে পূর্বাপেক্ষা অধিকতর সমাদৃত হবে। মহান আল্লাহ গ্রন্থকার ও অনুবাদককে এই অনন্য খেদমতের উত্তম প্রতিফল দান করুন, এটাই আমাদের সানুনয় প্রার্থনা।
ঢাকাঃ জানুয়ারী ২০০১
মুহাম্মাদ হাবিবুর রহমান
চেয়ারম্যান
মাওলানা আবদুর রহীম ফাউন্ডেশন
অনুবাদকের কথা
‘যাকাত’ দ্বীন ইসলামের মৌলিক বিধানের অতীব গুরুত্বপূর্ণ রুকণ। কিন্তু এ পর্যায়ে আধুনিক সমাজ ও অর্থনৈতিক পরিপ্রেক্ষিতে বিস্তারিত আলোচনা সম্বলিত কোন গ্রন্থ দুনিয়ার কোন ভাষায় আছে বলে আমার জানা ছিলো না।
তবে এ যুগের প্রখ্যাত ইসলামী চিন্তাবিদ, গবেষণা ও গভীর ব্যাপক পান্ডিত্যের অধিকারী কাতারের রাজধানী দোহায় বসবাসকারী ও তথাকার শিক্ষা বিভাগের দায়িত্বশীল পদে নিযুক্ত আল্লামা ইউসুফ আল-কারযাভী লিখিত ফিকহুল যাকাত فقه الزكواة নামক আরবী গ্রন্থটির নাম শুনে আসছিলাম তার প্রথম প্রকাশ ১৯৬৯ সন থেকেই। কিন্তু দুটি খন্ডে বিভক্ত ও বিরাট গ্রন্থখানি পড়ার কোন সুযোগ পূর্বে আমি পাইনি।
১৯৭৯ সনের রমযান পাসে ঢাকস্থ ইসলামিক ফাউন্ডেশনের মহাপরিচালক জনাব শামসুল আলমের কাছে এ বইখানি দেখতে পাই। তিনি এর বাংলা অনুবাদ করানোর ইচ্ছা প্রকাশ করেন এবং তখনই আমি সেই অনুবাদের দায়িত্ব গ্রহণ করি।
আমি নিঃসন্দেহে বিশ্বাস করি, আল্লামা ইউসূফ আল-কারযাভীর এ এক তুলনাহীন অমর সৃষ্টি। আমার জানামতে আরবী ভাষায়ও এ পর্যায়ে বা এর সমতুল্য গ্রন্থ আর একটি নেই। ইসলামী জ্ঞান ও আদর্শের ক্ষেত্রে যাকাত যেমন মহান আল্লাহর একটি বিশেষ অবদান, দুনিয়ার চিরকালের বঞ্চিত মানবতার জন্যে দারিদ্র্য মুক্তিরও এ এক অনন্য ও অনবদ্য ব্যবস্থা, তার বিস্তারিত ও ব্যাপক গভীর ব্যাখ্যা বিশ্লেষণে এ গ্রন্থখানি অনুরূপ এক মহামূল্য সম্পদ। ইসলামের বিশেষজ্ঞ মনীষিগণ এ গ্রন্থখানিকে যাকাত বিষয়ে বিশ্বকোষ বলে আখ্যায়িত করেছেন। এ গ্রন্থখানি রচনা করে তিনি দ্বীন-ইসলামের এক অতুলনীয় খেদমত আঞ্জাম দিয়েছেন এবং সেই সাথে গোটা মুসলিম জাহানের মহাকল্যাণ সাধন করেছেন।
আমি আশা করি এ গ্রন্থখানি আদ্যাপাস্ত পাঠ করে পাঠকবৃন্দ যাকাতের গুরুত্ব ও মানবতার কল্যাণে তার কল্পনাতীত বিরাট ভূমিকার কথা বিস্তারিতভাবে জানতে পারবেন।
ফিকহুয যাকাত’ নামক এ বিরাট গ্রন্থের পূর্ণাঙ্গ অনুবাদ সম্পন্ন করে বাংলাভাষী জনগনের সম্মুখে পেশ করতে পারা আমার জন্যে একটি অনুপম সৌভাগ্যের ব্যাপার বলে মনে করি এবং এজন্যে মহান আল্লাহর দরবারে নিবেদন করছি অশেষ শুকরিয়া।
(মাওলনা) মুহাম্মাদ আবদুর রহীম
মুস্তাফা মনযিল
২০৮, নাখালপাড়া

সূচী পত্র
প্রথম অধ্যায়ঃ যাকাত ব্যয়ের খাত
ভূমিকা
কুরআন যাকাত ব্যয়ের খাতের উল্লেখ
যাকাত ব্যয় খাত পর্যায়ে কুরআনী ঘোষণার তাৎপর্য
প্রথম পরিচ্ছেদঃ ফকীহ ও মিসকীন
ফকীর’ ও মিসকীন’ বলতে কাদের বোঝায়?
হানাফী মতে ‘ফকীহ’ ও মিসকীন’
ফকীর-মিসকীনের অংশ থেকে কোন ধনীকেই কিছু দেয়া যেতে পারে না
ধনীর যাকাত গ্রহণ নিষিদ্ধ
ইমাম সওরী প্রমুখের অভিমত
হানাফী মাযহাবের মত
ইমাম আল-কাসানী বলেছেন
ইমাম মালিক, শাফেয়ী ও আহমদের মত
উপার্জনক্ষম দরিদ্র ইবাদতে লিপ্ত ব্যক্তি যাকাত পাবে না ইলম শেখার কাজে একনিষ্ঠ ব্যক্তি যাকাত পাবে
প্রচ্ছন্ন আত্মসম্মান রক্ষাকারী দরিদ্ররা সাহায্য পাওয়ার অধিকারী
ফকীর ও মিসকীনকে কি পরিমাণ যাকাত দেয়া যাবে
প্রথমত জীবনকালের প্রয়োজন পরিমাণ দান
যখন দিবেই তখন সচ্ছল করে দাও
দ্বিতীয় মতঃ এক বছরের জন্যে যথেষ্ট পরিমাণ দিতে হবে
বিয়ে করিয়ে দেয়াও পূর্ণমাত্রার যথেষ্ট পরিমাণের অন্তর্ভূক্ত
ইলমের বই-পত্র দানও যথেষ্ট দানের অন্তর্ভূক্ত
কোন মতটি গ্রহণ করা উত্তম
ফকীরকে দেয় পরিমাণ পর্যায়ে অন্যান্য মত
ইমাম গাজালীর মত
দানে প্রশস্ততার মতকে অগ্রাধিকার দান
উপযুক্ত মানের জীবিকা ব্যবস্থা
স্থায়ী ও সুসংবদ্ধ সাহায্য ব্যবস্থা

দ্বিতীয় পরিচ্ছেদঃ যাকাত কার্যে নিয়োজিত কর্মচারী
যাকাতের অর্থনৈতিক ও প্রতিষ্ঠানগত ব্যবস্থাপনা
যাকাত আদায়কারী প্রেরণ সরকারের দায়িত্ব
যাকাত আদায়কারী কর্মচারীদের কর্তব্য
যাকাতের জন্যে দুটো প্রতিষ্ঠান
যাকাত পাওয়ার যোগ্যতা নির্ণয়ের ওপর গুরুত্ব
যাকাত কর্মচারী হওয়া শর্ত
কর্মচারীকে কত দেওয়া হবে
যাকাতের মালের প্রতি লোভের ওপর রাসূলের কঠোরতা
বেতনভুক্ত কর্মচারীদের জন্য দেয়া উপঢৌকন ঘুষ
যাকাত সংগ্রহকারীদের প্রতি নবী করীমের উপদেশ
মালের মালিকদের জন্যে দোয়া
মুসলিম জনকল্যানমূলক কাজে ব্যতিব্যস্ত লোকদের কি যাকাত কাজের কর্মচারী মনে করা হবে

তৃতীয় পরিচ্ছেদঃ যাদের মন সন্তষ্ট করা প্রয়োজন
এই খাতটির ফায়দা
এই লোকদের কয়েকটি ভাগ
রাসূলের ইন্তেকালের পর এই খাতটি কি পরিত্যাক্ত
মনসূখ হওয়ার দাবি অগ্রহনযোগ্য
মন তুষ্ট করার প্রয়োজন কখনই ফুরায় না
মন সন্তুষ্টকরণ ও মুয়াল্লাফাতু’র জন্যে যাকাত ব্যয়ের অধিকার কার
এ যুগে মুয়াল্লাফাত’ খাতের টাকা কোথায় ব্যয় করা হবে
যাকাতের মাল ছাড়াও এ কাজ করা জায়েয

চতুর্থ পরিচ্ছেদঃ ফির-রিকাব – দাসমুক্তি
কুরআনে খাত নির্ধারণে অক্ষর প্রয়োগের পার্থক্য
ফির-রিকাব-এর তাৎপর্য
দাসপ্রথা বিলুপ্তকরণের ইসলামের অগ্রবর্তীতা
মুসলিম বন্দীকে দাসমুক্তির অংশ দিয়ে মুক্ত করা যাবে
সাম্রাজ্যবাদী শক্তির অধীন জাতিসমূহকে কি যাকাত দিয়ে সাহায্য করা যাবে
পঞ্চম পরিচ্ছেদঃ আল গারেমূন’- ঋণগ্রস্ত লোকগণ গোরেমূন কারা
নিজের প্রয়োজনে ঋণ গ্রহণকারী লোক
আকস্মিক বিপদগ্রন্তরা এই পর্যায়ে গণ্য
ব্যক্তিগত প্রয়োজনে ঋণ গ্রহণকারীকে সাহায্যদেয়ার শর্ত
ব্যক্তিগত প্রয়োজনে ঋণ গ্রহীতাকে কত দেয়া হবে
ঋণগ্রন্তদের প্রতি ইসলামের ভীতি প্রদর্শন
দ্বিতীয় প্রকারঃ অন্য লোকের কল্যাণে ঋণগ্রন্ত হওয়া মৃতের ঋণ শোধে যাকাত ব্যবহার
শিয়া জাফরী ফিকাহরও এই মত
যাকাত থেকে ‘কারযে হাসানা’ দেয়া
ষষ্ঠ পরিচ্ছেদঃ ফী-সাবীলিল্লাহ- আল্লাহর পথে
হানাফী মাযহাব
মালিকী মাযহাবের মত
শাফেয়ী মত
হাম্বলী মত
আলোচ্য বিষয়ে চারটি মাযহাবের ঐকমত্য
যারা সাবীলিল্লাহর তাৎপর্য ব্যাপক মনে করেন
কতিপয় ফিকাহবিদের মত
আনাস ও হাসান সম্পর্কে বলা কথা
জাফরী ইমামিয়া ফিকাহর মত
জায়দীয়া ফিকাহর মত
الروضة النديه এর লেখকের অভিমত
মুহাদ্দিসমন্ডলীর মত-আল কাসেমী
রশীদ রিজা ও শালতুতের অভিমত
মাখলুকের ফতোয়া
তুলনা ও অগ্রাধিকার দান
কুরআনে সাবীলিল্লাহ’ ব্যয় করার কথাটির পার্শ্বে ‘সাবীলিল্লাহর’ অর্থ কি
যাকাত ব্যয়ক্ষেত্রে ‘সাবীলিল্লাহর অর্থ কোথায় ব্যয় করা হবে
কাফরী শাসন থেকে ইসলামী দেশ মুক্তকরণ
সব যুদ্ধই ‘ফী সাবীলিল্লাহ’ নয়
ইসলামী শাসন পুনঃপ্রতিষ্ঠার চেষ্টা আল্লাহর পথে জিহাদ
একালে ইসলামী জিহাদের বিচিত্র রূপ
সপ্তম পরিচ্ছেদঃ ইবনুল সাবীল- নিঃস্বপথিক
ইবনুস সাবীল’ কে
ইবনুস সাবীল-এর প্রতি কুরআনের বদান্যতা
ইবনুস সাবীল- এর প্রতি গুরুত্ব দানের যৌক্তিকতা
সামাজিক নিরাপত্তার এক দৃষ্টান্তহীন ব্যবস্থা
সফর শুরুকারী ও সফর সমাপ্তকারী
জমহুর ফিকাহবিদদের বক্তব্য
ইবনুস সাবীল পর্যায়ে ইমাম শাফেয়ীর বক্তব্য
এই গ্রন্থকারের বিবেচনা
ইবনুস সাবীলকে যাকাত দেয়ার শর্ত
ইবনুস সাবীলকে কত দেয়া হবে
এযুগে ইবনুস সাবীল পাওয়া যায় কি
ইবনুস সাবীল এর বাস্তবরূপ
পালিয়ে যাওয়া ও আশ্রয়গ্রহণকারী লোক
ফিকাহর পরিভাষায় তাদের কি বলা হবে?
নিজ ঘরে থেকেও নিজের মালের ওপর কর্তৃত্ব নেই যার
কল্যাণমূলক কাজে বিদেশ গমনকারী
আশ্রয় বঞ্চিত লোকেরা
পড়ে পাওয়া মানুষ
অষ্টম পরিচ্ছেদঃ যাকাত পাওয়ার যোগ্য লোকদের সম্পর্কে পর্যালোচনা
যাকাত পাওয়ার যোগ্য লোকদের সম্পর্কে ফিকাহবিদদের সামগ্রিক পর্যালোচনা
الروضة النديه গ্রন্থকারের গবেষণা
আবূ উবাইদের অগ্রাধিকার দান
রশিদ রিজার অগ্রাধিকার দান
খাতসমূহের যাকাত বন্টনের সার কথা
নবম পরিচ্ছেদঃ যেসব খাতে যাকাত ব্যয় করা হবে না
প্রথম আলোচনাঃ ধনী সচ্ছল লোকেরা
ছোট বয়সের ধনী পুত্র পিতাকেও ধনী করে দেয়
দ্বিতীয় আলোচনাঃ উপার্জনশীল শক্তিসম্পন্ন লোক
তৃতীয় আলোচনাঃ অমুসলিমকে যাকাত দেয়া যায়ে কি
নাস্তিক, দ্বীন ত্যাগকারী ও ইসলামের সাথে যুদ্ধকারীকে যাকাত দেয়া যাবে না
যিম্মীদের যাকাত দেয়া
নফল সাদকা দান
সাদকায়ে ফিতর থেকে দেয়া
জমহুর ফিকাহবিদদের দৃষ্টিতে মালের যাকাত অমুসলিমকে দেয়া জায়েয নয়
ইজমা হওয়ার দাবির পর্যালোচনা
তুলনা ও অগ্রাধিকার দান
ফাসিক ব্যক্তিকে কি যাকাত দেয়া যাবে
নামায তরককারী সম্পর্কে বলেছেন
সাইয়্যেদ রশীদ রিজার বক্তব্য
ইসলামের পরস্পর বিরোধী গোষ্ঠীসমূহকে যাকাত দান
চতুর্থ আলোচনাঃ স্বামী, পিতামাতা ও নিকটাত্মীয়কে কি যাকাত দেয়া যাবে
স্ত্রীকে যাকাত দেয়া জায়েয নয়
স্ত্রী কি তার দরিদ্র স্বামীকে যাকাত দিতে পারে
অন্যান্য নিকটাত্মীয়দের যাকাত দানঃ নিষেধকারী ও অনুমতিদানকারী
নিকটাত্মীয়দের যাকাত দেয়া জায়েয বলেছেন যারা
তুলনা অগ্রাধিকার দান
পঞ্চম আলোচনাঃ মুহাম্মাদ (সা) এর বংশ পরিবার
যেসব হাদীস মুহাম্মাদ (স) এর বংশ পরিবারের জন্যে যাকাত হারাম বলে
আলে মুহাম্মাদ (স) কারা
হাশিমীর গণীমত ও ফাই সম্পদের অংশ না পেলে
পর্যালোচনা ও অগ্রাধিকার দান
ষষ্ঠ আলোচনাঃ যাকাত ব্যয় ভুল-ভ্রান্তি
যাকাতদাতা যাকাত ব্যয়ে ভুল করলে কি করা হবে
মালিকী মতে
যায়দীয়া ফিকাহবিদদের মতে
দ্বিতীয় অধ্যায়ঃ যাকাত আদায় করার পন্থা
ভূমিকা
প্রথম পরিচ্ছেদঃ যাকাতের সাথে রাষ্ট্রের সম্পর্ক
যাকাতের ব্যাপারে রাষ্ট্রের দায়িত্ব ও জবাবদিহি
কুরআনের দলিল
হাদীস
নবী ও খুলাফায়ে রাশেদুনের বাস্তব সুন্নাত
সাহাবিগণের ফতোয়া
এই ব্যবস্থার তত্ত্ব ও বৈশিষ্ট্য
যাকাত সম্পদের ঘর
প্রকাশমাল ধন-মাল ও প্রচ্ছন্ন ধনমাল এবং তার যাকাত যে পাবে
হানাফিদের রায়
মালিকী মাযহাবের বক্তব্য
শাফেয়ী মাযহাবের মত
বাম্বলী মাযহাবের বক্তব্য
জায়দীয়া ফিকাহবিদদের মত
আবাজায়ীদের মত
শবী, বাকের, আবু রুজাইন ও আওযায়ীর মত
তুলনা ও অগ্রাধিকার দান
আবূ উবাইদের মত এবং তার পর্যালোচনা
এ যুগে যাকাত আদায়ের দায়িত্ব কার ওপর
যাকাত গোপনকারী, দিতে অস্বীকারকারী বা দেয়ার মিথ্যা দাবিকারী সম্পর্কে বিভিন্ন মাযহাবের অভিমত
হানাফী ফিকাহবিদদের মত
মালিকী মাযহাবের মত
শাফেয়ী মাযহাবের মত
যাকাত দিতে অস্বীকারকারীকে শিক্ষাদান ও জোরপূর্বক গ্রহণে ঐকমত্য
যাকাত দিতে অস্বীকারকারীকে তার অর্ধেক মাল নিয়ে শাস্তিদান ও বিভিন্ন মত
পর্যালোচনা ও অগ্রাধিকার দান
হাম্বলী মাযহাবের মত
জায়দীয়া মতের লোকদের বক্তব্য
অত্যাচারী শাসকের কাছে যাকাত দেয়ার
যাঁরা জায়েয বলেছেন তাঁদের বক্তব্য
যাঁরা নিষেধ করেছেন তাঁদের অভিমত এবং দলিল
যাঁরা পার্থক্যকরণের মত দিয়েছেন
হানাফীদের মত
হাম্বলীদের মত
তুলনা ও অগ্রাধিকার দান
শাসকের মুসলিম হওয়া শর্ত
দ্বিতীয় পরিচ্ছেদঃ যাকাতে নিয়তের স্থান
যাকাতে নিয়তের শর্তকরণ
ইমাম আওযায়ীর মত এবং তার পর্যালোচনা
যাকাতের নিয়তের অর্থ কি
প্রশাসকের যাকাত গ্রহণ অবস্থায় নিয়ত
যাকাতে নিয়তের সময়
তৃতীয় পরিচ্ছেদঃ যাকাতের মূল্য প্রদান
মূল্য প্রদানে ফিকাহবিদাদের বিভিন্ন মত
মতবৈষম্যের কারণ
মূল্যদানের নিষেধকারীদের দলিল
মূল্য প্রদান জায়েয মতের দলিল
তুলনা ও অগ্রাধিকার দান
চতুর্থ পরিচ্ছেদঃ যাকাত স্থানান্তকরণ
কোন স্থানের জনগণ দারিদ্রমুক্ত হলে সেখানকার যাকাত অন্যত্র নিয়ে যাওয়া জায়েয
পূর্ণ অভাবমুক্তি না হওয়া সত্ত্বেও স্থানান্তরি করণে বিভিন্ন মত
রাষ্ট্র প্রধানের ইজতিহাদে স্থানান্তর জায়েয
বিশেষ প্রয়োজন ও কল্যাণ দৃষ্টিতে ব্যক্তিদের যাকাত স্থানান্তরিতকরণ
পঞ্চম পরিচ্ছেদঃ যাকাত প্রদানে দ্রুততা ও বিলম্বিতকরণ
দ্রুত ও অনতিবিলম্বে যাকাত দিয়ে দেয়া ফরয
যাকাত প্রদানে তাড়াহুড়া করা নির্দিষ্ট সময়ের পূর্বেই যাকাত আদায় করা
যাঁরা জায়েয বলেন না তাঁদের দলিল
যাঁরা জায়েয বলেন তাঁদের দলিল
অগ্রিম দেয়ার কোন নির্দিষ্ট সীমা আছে কি
যাকাত বিলম্বিত করা কি জায়েয
বিনা প্রয়োজনে যাকাত প্রদান বিলম্বিত করা
যাকাত দেয়ার পর তা বিনষ্ট হয়ে গেলে
যাকাত ফরয হওয়ার পর ও প্রদানের পূর্বে মাল ধ্বংস হলে
বিষয় দুটিতে মতপার্থক্যের কারণে
আগে-পরে হলে কি যাকাত রহিত হবে
যাকাতের ঋণ অপরাপর ঋণের তুলনায়
ষষ্ঠ পরিচ্ছেদঃ যাকাত প্রদান পর্যায়ে বিভিন্ন বিক্ষিপ্ত আলোচনা
যাকাত রহিত করার উদ্দেশ্যে কৌশল অবলম্বন
ফিকাহবিদদের বিভিন্ন মত
মালিকী মতের লোকেরা কৌশল হারাম বিলুপ্ত করেন
হাম্বলী মতের লোকেরা মালিকী লোকদের মতই
জায়দীয়া মতের লোকেরা কৌশল অবলম্বন হারাম মনে করেন
যাকাতদাতা ও গ্রহীতা কি বলবে
যাকাত প্রদানের উকিল নিয়োগ
যাকাত প্রকাশ্যভাবে প্রদান
ফকীরকে জানাতে হবে না যে এ যাকাত
গরীব ব্যক্তির ঋণ রহিত করাকে যাকাত গণ্য করা যাবে
তৃতীয় অধ্যায়ঃ যাকাতের লক্ষ্য এবং ব্যক্তি ও সামষ্টিক জীবনে তার প্রভাব
ভূমিকা
প্রথম পরিচ্ছেদঃ ব্যক্তি জীবনে যাকাতের লক্ষ্য ও প্রভাব
প্রথম আলোচনাঃ যাকাতের লক্ষ্য ও দাতার জীবনে তার প্রভাব
যাকাত লোভ নিবারক ও তা থেকে পবিত্রকারী
যাকাত অর্থদান ও ব্যয়ে অভ্যস্ত করে
আল্লাহর চরিত্র ভুষিত হওয়া
যাকাত আল্লাহর নিয়ামতের শোকর
দুনিয়া প্রেমের চিকিৎসা
ধনীর ব্যক্তিত্ব বিকাশে যাকাত
যাকাত ভালবাসা উদ্ভাবক
যাকাত ধন-মালের পবিত্রতা বিধান করে
যাকাত হারাম মাল পবিত্র করে না
যাকাত ধন-মালের প্রবৃদ্ধির কারণ
দ্বিতীয় আলোচনাঃ গ্রহণকারীর জীবনে যাকাতের লক্ষ্য ও প্রভাব
যাকাত তার গ্রহণকারীকে অভাবগ্রস্ততা থেকে মুক্তি দেয়
যাকাত হিংসা ও বিদ্বেষ দূর করে
দ্বিতীয় পরিচ্ছেদঃ যাকাতের লক্ষ্য ও সমাজ জীবনে তার প্রভাব
যাকাত ও সামাজিক নিরাপত্তা
যাকাত ও অর্থনৈতিক রূপায়ন
যাকাত ও জাতির আধ্যাত্মিক উপাদান
পার্থক্য সমস্যা
ভিক্ষাবৃত্তি সমস্যা
কাজই আসল ভিত্তি
লোকদের কাছে চাওয়া হারাম
যে ধনাঢ্যতা ভিক্ষঅ হারাম করে
কর্মক্ষম লোকদের কর্মসংস্থানই ভিক্ষাবৃত্তি রোধের বাস্তব উপায়
অক্ষম লোকদের জীবিকার নিরাপত্তা
পারস্পরিক শত্রুতা ও সম্পর্ক বিনষ্টির সমস্যা
সৌভ্রাতৃত্ব মৌল ইসলামী লক্ষ্য
ইসলামী ভ্রাতৃত্বের দৃষ্টান্তমূলক সমাজ
ইসলাম বস্তবভিক্তিক আইন তৈরী করে
যুদ্ধ-বিগ্রহ মানব সমাজের আদিম ক্রিয়া
ঝগড়া-বিবাদ ও দ্বন্দ্ব-সংগ্রামে ইসলামের ভূমিকা
মীমাংসার জন্যে হস্তক্ষেপ করা সমষ্টির দায়িত্ব
মীমাংসাকারী কমিটি
অর্থনৈতিক দায়-দয়িত্ব
একটি ফিকহী প্রশ্ন
কঠিন দুঃখপূর্ণ ঘটনার সমস্যা
প্রাচুর্য ও বিপদমুক্ততা
কালের ঘাত-প্রতিঘাত
আকস্মিক দুর্ঘটনা উত্তরকালে বীমা ব্যবস্থা সূচনা করেছে
ইসলামী বীমা ব্যবস্থা
ঋণগ্রন্তদের অংশে আকস্মিক দুর্ঘটনার সাহায্য
আকস্মিক বিপদগ্রস্তকে কত দেয়া হবে
চাষের জমির বিপদ
কুমারিত্বের সমস্যা
ইসলামে বৈরাগ্যবাদ নেই
পালিয়ে যাওয়ার সমস্যা
একটি জরুরী সতর্কবাণী
চতুর্থ অধ্যায়ঃ ফিতরের যাকাত
প্রথম পরিচ্ছেদঃ ফিতরের যাকাত এর অর্থ তার হুকুম ও যৌক্তিকতা
ফিতরের যাকাত এর অর্থ
ফিতরের যাকাতও ওয়াজিব
ফিতরের যাকাত বিধিবদ্ধ হওয়ার যৌক্তিকতা
দ্বিতীয় পরিচ্ছেদঃ যাকাতুল ফিতল কার উপর ওয়াজিব এবং কাদের পক্ষ থেকে দেয়া ওয়াজিব
ফিতরের যাকাত কার ওপর ওয়াজিব
স্ত্রী ও শিশুর ওপরও কি ওয়াজিব
দর্ভস্থ সন্তানের ফিতরাও কি ওয়াজিব
সাদকায়ে ফিতর ওয়াজিব হওয়ার জন্যে নিসাব কি শর্ত
দুরিদ্রদের ওপর ফিতরা ওয়াজিব হওয়ার শর্ত
দীর্ঘমেয়াদী ঋণ ফিতরা দেয়ার প্রতিবন্ধক নয়
তৃতীয় পরিচ্ছেদঃ ওয়াজিব ফিতরার ঋণ এবং কি থেকে দিতে হবে
অর্ধ ছা’গম দেয়ার কথা যাঁরা বলেছেন তাঁদের মত
এক ছা’ পরিমাণ ওয়াজিব যাঁরা বলেছেন তাঁদের দলিল
অর্ধ ছা’ যথেষ্ট বলার সমর্থনে আবূ হানিফার দলিল
পর্যালোচনা ও অগ্রাধিকার দান
এক ছা’ পরিমাণের বেশী দেয়া কি জায়েয
এক ছা’ এর পরিমাণ
যেসব জিনিস ফিতরা বাবদ দেয়া হয়
মূল্য প্রদান
মূল্য প্রদান সম্পর্কিত বিষয়াদি
চতুর্থ পরিচ্ছেদঃ ফিতরা কখন ওয়াজিব হয় এবং তা কখন প্রদান করতে হবে
ফিতরা কখন ওয়াজিব হয়
কখন প্রদান করা হবে
পঞ্চম পরিচ্ছেদঃ ফিতরা কাদের দেয়া হবে
ফিতরা মুসলমান গরীবকে দিতে হবে
যিম্মী মিসকীনদের ব্যাপারে মতানৈক্য
ফিতরাও কি যাকাতের আটটি খাতে বন্টনীয়
ফিতরা যাকে দেয়া যাবে না
স্থানীয় দরিদ্র ব্যক্তি বেশী অধিকারী
পঞ্চম অধ্যায়ঃ যাকাত ছাড়া ধন-মালে কোন অধিকার কি স্বীকৃতব্য
ধন-মালের যাকাত ছাড়াও কোন অধিকার আছে কি
প্রথম পরিচ্ছেদঃ ধন-মালে যাকাত ছাড়া আরও কিছু অধিকার থাকার বিরোধী মত
এ মতের সমর্থনে উপস্থাপিত হাদীসসমূহ
বিপরীতধর্মী দলিলসমূহ সম্পর্কে তাদের বক্তব্য
দ্বিতীয় পরিচ্ছেদঃ ধন-মালে যাকাত ছাড়া অধিকার আছে এই কথায় বিশ্বাসীদের মত
তাদের দলিল
দ্বিতীয় দলিলঃ কাটাকালে ফসলের হক
তৃতীয় দলিলঃ দবাদিপশুর ও ঘোড়ার হক
চতুর্থ দলিলঃ অতিথির অধিকার
পঞ্চম দলিলঃ নিত্য ব্যবহার্য জিনিসের হক
ষষ্ঠ দলিলঃ মুসলিম সমাজে পারস্পরিক দায়িত্ব গ্রহণ কর্তব্য
ইবনে হাজম এ মতটি পক্ষাবলম্বন করেছেন
কুরআনী দলিল
হাদীসের দলিল
সাহাবিগণের উক্তি
ভিন্ন মতের লোকদের ইবনে হাজমের সমালোচনা
তৃতীয় পরিচ্ছেদঃ মুক্তকরণ ও অগ্রাধিকার দান
দুই পক্ষের মধ্যকার দ্বন্দ্বের ক্ষেত্রে উদঘাটন
পর্যালোচনা ও অগ্রাধিকার দান
ভিন্ন মতের লোকদের দলিল হিসেবে উপস্থাপিত হাদীসসমূহের তাৎপর্য
ষষ্ঠ অধ্যায়ঃ যাকাত ও কর
প্রথম পরিচ্ছেদঃ কর-এর মৌল তত্ত্ব ও যাকাতের মৌল তত্ত্ব
যাকাত ও কর এর পারস্পারিক একত্বের কতিপয় দিক
যাকাত ও কর এর মধ্যে পার্থক্যের দিকসমূহ
যাকাত, ইবাদত ও কর-একসাথে
দ্বিতীয় পরিচ্ছেদঃ কর ধার্যকরণ ও যাকাত ফরযকরণের দার্শনিক ভিত্তি
কর’ ধার্যকরণের আইনগত ভিত্তি
সামাজিক চুক্তি সংক্রান্ত মতবাদ
রাষ্ট্রের প্রাধান্যের মতবাদ
যাকাত ফরয করার ভিত্তি
শরীয়াত পালনে বাধ্য করার সাধারণ দৃষ্টিকোণ
খলিফা বানানোর মত
ব্যক্তি ও সমষ্টির মধ্যকার দায়িত্ব গ্রহণের মতবাদ
মুসলমানদের মধ্যে পারস্পরিক ভ্রাতৃত্ব
তৃতীয় পরিচ্ছেদঃ কর ধার্যের ক্ষেত্রে বনাম যাকাত ধার্যের ক্ষেত্রে
প্রথম আলোচনাঃ মুলধনে যাকাত
যাকাতে মূলধন করের বৈশিষ্ট্য আছে-দোষ ত্রুটি নেই
মূলধনের ওপর কর ধার্যের বৈশিষ্ট্য-তার সমর্থকদের দৃষ্টিতে
মূলধনের ওপর কর ধার্যকরণ বিরোধীদের বক্তব্য
মূলধনের ওপর কর ধার্যকরণ কালে অবশ্য গ্রহণীয় সতর্কতা
যাকাত ফরযকরণের এই বিষয়গুলোর ওপর লক্ষ্য আরোপে ইসলামের অগ্রবর্তীতা
দ্বিতীয় আলোচনাঃ আয় ও উৎপন্নের উপর যাকাত
আয়-এর তাৎপর্য
ইসলাম শরীয়াতের আয়ের যাকাত
তৃতীয় আলোচনাঃ ব্যক্তিদের উপর ধার্য যাকাত
ব্যক্তিদের উপর ধার্য কর
বিশেষত্ব ও দোষ ত্রুটি
ফিতারার যাকাতে ব্যক্তিগণের কর এর মতই সুবিধা
চতুর্থ পরিচ্ছেদঃ কর ও যাকাতের মধ্যে সুবিচারের ভূমিকা
প্রথম আলোচনাঃ সুবিচার ও ন্যায়পরতার ক্ষেত্রে
প্রথমঃ যাকাত ফরয হওয়ার সমতা ও সাম্য
দ্বিতীয়ঃ নিসাবের কম পরিমাণ ধন-মাল বাবদ যাবে
তৃতীয়ঃ জোড়া যাকাত নিষিদ্ধ
চতুর্থঃ কষ্টের পার্থক্যের দরুন যাকাত পরিমাণে পার্থক্য
পঞ্চমঃ করদাতার ব্যক্তিগত অবস্থার প্রতি লক্ষ্য দান
ষষ্ঠঃ সংগতি বিধানে সুবিচার
দ্বিতীয় আলোচনাঃ দৃঢ় প্রত্যয়
তৃতীয় আলোচনাঃ মধ্যম নীতি অনুসরণে
পঞ্চম পরিচ্ছেদঃ কর’ ও যাকাতের’ মধ্যে স্থিতি ও ঊর্ধ্বগামিতা
স্থিতিশীল কর ও ঊর্ধ্বগামী কর
যাকাত ঊর্ধ্বমুখী নীতিতে গ্রহণ করা হয় না কেন
ষষ্ঠ পরিচ্ছেদঃ কর-এর নিশ্চয়তা যাকাতের নিশ্চয়তা
কর’ ফাঁকি দেয়া
কর’ ফাকি দেয়ার কারণ
কর’ ফাঁকি দেয়ার ধরণ ও পদ্ধতি কর ফাঁকি দেয়ার ক্ষতি
ফাঁকি প্রতিরোধ ও কর দেয়া নিশ্চিতকরণ
ইসলামী শরীয়াতে যাকাতের নিশ্চয়তা
দ্বীনী ও নৈতিক নিশ্চয়তা
আইনগত ও সাংগঠনিক নিশ্চয়তা
যাকাত সংগ্রহকারীদের সহযোগিতা করা ও কোন জিনিস গোপন না করার নির্দেশ
যাকাত এড়ানোর কৌশল অবলম্বণ নিষিদ্ধ
যাকাত দিতে অস্বীকারকারীর অপরাধ ও আর্থিক দন্ড
সপ্তম পরিচ্ছেদঃ যাকাতের পরও কি কর ধার্য হবে
প্রথম আলোচনাঃ যাকাতের পাশাপাশি কর ধার্যকরণ জায়েয হওয়ার দলিল
প্রথমঃ সামষ্টিক দায়িত্ব গ্রহণ কর্তব্য
দ্বিতীয়ঃ যাকাত ব্যয় ক্ষেত্র সুনির্দিষ্ট, রাষ্ট্রের আর্থিক দায়িত্ব বহু
তৃতীয় শরীয়াতের সর্বাত্মক নিয়ম
চতুর্থঃ মাল দিয়ে জিহাদ এবং বড় পরিমাণ ব্যয়ের দাবি
পঞ্চমঃ জনসম্পদের লাভবান হওয়া
দ্বিতীয় আলোচনাঃ কর ধার্যকরণের অবশ্য পালনীয় শর্তাবলী
প্রথম শর্তঃ অর্থের প্রকৃত প্রয়োজন- অন্য আয়সূত্র না থাকা
দ্বিতীয় শর্তঃ কর-এর বোঝা ইনসাফ সহকারের বন্টন
তৃতীয় শর্তঃ জাতীয় কল্যাণে ব্যয় করতে হবে পাপ ও নির্লজ্জতার কাজে নয়
চতুর্থ শর্তঃ উপদেষ্টা পরিষদ ও জনমতের সামঞ্জস্য রক্ষা
পরামর্শ করা কুরআন সুন্নাহর প্রমাণে ফরয
পরামর্শ কি জ্ঞানদানকারী না বাধ্যতামূলক
তৃতীয় আলোচনাঃ কর ধার্যের বিরোধীদের সংশয়
প্রথম সংশয়ঃ ধন-মালের যাকাত ছাড়া আর কিছু প্রাপ্য নেই
দ্বিতীয় সংশয়ঃ ব্যক্তিগত মালিকানার মর্যাদা রক্ষা
তৃতীয় সংশয়ঃ কর ও শুল্ক ধার্যকারণের বিরুদ্ধে বর্ণিত হাদীস প্রথম সংশয়ের জবাব
তৃতীয় সংশয়ের জবাবঃ শুল্ক কর শরীয়াতসম্মত কর নয়
মুসলমানদের عشور মুক্তি সংক্রান্ত হাদীসের তাৎপর্য
আবূ উবাইদের ব্যাখ্যা
তিরমিযীর ব্যাখ্যা
আল মুনাভীর অভিমত ও তার পর্যালোচনা
চার মাযহাবের ফিকাহবিদগণ সুবিচারপূর্ণ কর জায়েয মনে করেন
হানাফী ফিকাহতে
অবশিষ্ট তিনটি মাযহাবের ফিকাহতে
অত্যাচারমূলক কর পর্যায়ে ফিকহী খুঁটিনাটি
অষ্টম পরিচ্ছেদ যাকাতের পর কর ধার্যের প্রয়োজন হবে না
মুসলিম জীবনের বাস্তব বৈপরীত্য
এই বৈপরীত্য সৃষ্টিতে সম্রাজ্যবাদের প্রভাব
যাকাতের ব্যাপারে ইসলামী সরকারের দায়িত্ব
সরকার যাকাত না নিলে ব্যক্তির দায়িত্ব কি
কর দিয়েই যাকাতের দায়িত্ব থেকে মুক্তির ফতোয়া
অধিকাংশ আলিম কর বা مكس কে যাকাত পর্যায়ের মনে করেন না
ইবনে হাজার হায়সামীর বক্তব্য
ইবনে আবেদীনের বক্তব্য
শায়খ আলী শের ফতোয়া
সাইয়্যেদ রশীদ রিজর ফতোয়া
শায়খ শালতুতের ফতোয়া
শায়খ আবু জুহরার অভিমত
সার কথা
উপসংহার
ইসলামের যাকাত এক অভিনব ও অনন্য ব্যবস্থা
যাকাত একটা আর্থিক ও অর্থনৈতিক ব্যবস্থা
তা একটি রাজনৈতিক ব্যবস্থা
তা একটি নৈতিক ব্যবস্থা
সর্বোপরি তা একটা দ্বীনী ব্যবস্থা
যাকাতের পক্ষে ভিন্নমতের লোকদের সাক্ষ্য
মুসলিম সমাজ সংস্কারকদের কথা
ইসলামের মর্যাদা পুনঃপ্রতিষ্ঠার জন্যে যাকাত আদায়
বাধ্যতামূলক করাই যথেষ্ট
যাকাত উম্মতের কাছ থেকে ও তাদের প্রতি
মুসলিম সমাজে যাকাতের ভূমিকা
ইসলামে যাকাতের উজ্জ্বলতম দিক
শেষ কথা
ইসলামের যাকাত বিধান
দ্বিতীয় খন্ড
بسم الله الرحمن الرحيم
আল্লাহর বিধান
خُذْ مِنْ أَمْوَالِهِمْ صَدَقَةً تُطَهِّرُهُمْ وَتُزَكِّيهِمْ بِهَا وَصَلِّ عَلَيْهِمْ إِنَّ صَلَاتَكَ سَكَنٌ لَهُمْ وَاللَّهُ سَمِيعٌ عَلِيمٌ
লোকদের ধন-মাল থেকে যাকাত গ্রহণ কর, তার দ্বারা তাদের পবিত্র ও পরিশুদ্ধ কর এবং তাদের জন্যে কল্যাণের দো’আ কর। নিঃসন্দেহে তোমার এই দো’আ তাদের জন্যে পরম সান্ত্বনার কারণ। আর আল্লাহ সর্বশ্রোতা সর্বজ্ঞ।
প্রথম অধ্যায়
যাকাত ব্যয়ের খাত
ফকীর ও মিসকীন
(যাকাত আদায় ও বন্টন কাজে) নিয়োজিত কর্মচারীবৃন্দ
যেসব লোকের মন জয়ের প্রয়োজন
দাস মুক্তকরণ
ঋণগ্রস্ত লোক
আল্লাহর পথে
নিঃস্ব পথিক
যাকাত পাওয়ার অধিকারী বিভিন্ন প্রকার লোকদের সম্পর্কে বিছিন্ন আলোচনা
যেসব ব্যক্তির জন্যে যাকাত ব্যয় করা হবে না

এই সম্পর্কিত আরও বই

Top